ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করার নিয়ম ২০২৩ | NID Card Download Online Copy 2023

আজকের এই আর্টিকেলে ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড এবং NID card download কিভাবে করবেন তা খুব সহজে বুঝিয়ে দেওয়া হবে। আপনি যদি চান আপনার মোবাইল থেকে ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করতে তাহলে এই পোস্টটি সম্পূর্ণ পড়ুন।

ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করা একদম সহজ একটি কাজ তবে আমাদের অনেকের জানা না থাকার কারণে দোকানে গিয়ে টাকার বিনিময়ে আইডি কার্ড ডাউনলোড এবং চেক করিয়ে থাকি তবে আপনাকে আর এই সমস্যার সম্মুখীন হতে হবে না আপনার মোবাইলের মাধ্যমে ডাউনলোড করতে পারবেন।

ভোটার আইডি কার্ড অনলাইন কপি ডাউনলোড অথবা চেক করতে হলে প্রথমে আপনাকে ভোটার আইডি কার্ডের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে একাউন্ট খুলতে হবে একাউন্ট খুলা ছাড়া আপনি আপনার ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করতে পারবেন না। তবে খুব সহজে ভোটার আইডি কার্ড এর ওয়েবসাইটে একাউন্ট খুলা বুঝিয়ে দিব আমাদের ধাপ গুলো ভালো করে অনুসরণ করুন।

প্রথম ধাপ: ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করার জন্য প্রথমে আপনি আপনার মোবাইলের যেকোন একটি ব্রাউজার ওপেন করে নিন এবং গুগলে সার্চ করুন NID Check করার পর সর্বপ্রথম services.nidw.gov.bd এই ওয়েবসাইটটি আসবে আপনি এই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করবেন ওয়েবসাইটে প্রবেশ করার পর নিচের পিকচারের মত একটি পেজ আসবে।

ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড

NID CARD DOWNLOAD এন আইডি কার্ড এর এই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করার পর দেখতে পাবেন একাউন্ট নেই একটি অপশন রয়েছে আপনি যদি আগে রেজিস্ট্রেশন করে থাকে ভোটার আইডি কার্ড চেক করার জন্য তাহলে এখন আবার রেজিস্ট্রেশন করতে হবে না আপনি লগ ইন করলেই হবে আপনি একটু নিচের দিকে স্করল করলে লগ ইন করার অপশন পেয়ে যাবেন।

ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করার ২য় ধাপ

দ্বিতীয় ধাপ: এখন যদি আপনার ভোটার আইডি কার্ডের ওয়েবসাইটে রেজিস্ট্রেশন না থাকে তাহলে উপরের দেওয়া পিকচারে দেখতে পাচ্ছেন রেজিস্ট্রার করুন একটি বটম আপনি এটিতে ক্লিক করুন ক্লিক করার পর নতুন আরেকটি পেইজ আসবে আপনার সামনে ভোটার আইডি কার্ড এর নাম্বার এবং জন্ম তারিখ এবং কেপচার পূরণ করে সাবমিট করতে নিচের পিকচার দেখুন।

ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড

উপরের পিকচারের দেখতে পাচ্ছেন জাতীয় পরিচয়পত্র নম্বর/ বা ফরম নম্বর দিতে আপনার কাছে আইডি কার্ডের নাম্বার থাকে তাহলে আইডি কার্ডে দেওয়া নাম্বার দিবেন আর যদি না থাকে ভোটার আইডি কার্ড এর ফরম নম্বরটি দিবেন তারপর আপনার বয়স জন্ম তারিখ সঠিক ভাবে দিন এবং কেপচারটি পূরণ করে সাবমিট অপশনে ক্লিক করুন।

তৃতীয় ধাপ: ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করার জন্য যখন ফরম নম্বর এবং জন্ম তারিখ দিয়ে পরের ধাপে যাবেন তখন আপনি আপনার ভোটার তথ্য দিতে হবে আপনার ভোটার আইডির মধ্যে যে বিভাগ, জেলা, উপজেলা, ইউনিয়ন, এই সবকিছু দিয়ে পরের ধাপে যাবেন তখন আপনি আপনার মোবাইল নাম্বার ভেরিফাই করতে হবে, যদি আপনি যদি পুরাতন ভোটার হন তাহলে মোবাইল নাম্বার এড করে ভেরিফাই করে নিবেন ভোটার আইডি কার্ড এর জন্য কিভাবে রেজিস্ট্রেশন করতে হয় এই সম্পূর্ণ পদ্ধতি এই পোস্টটিতে দেওয়া আছে পড়ে আসেন

উপরের দেওয়া পোস্টটি ভালো করে অনুসরণ করে রেজিস্ট্রেশন কমপ্লিট করে তবে অবশ্যই পাসওয়ার্ড সেটাপ করতে ভুলবেন না।

ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোডের জন্য লগইন করুন

১ম ধাপ: ভোটার আইডি কার্ডের ওয়েবসাইটে রেজিস্ট্রেশন শেষ হয়ে গেলে আপনি হোম পেজে আবার আসবেন এবং নিচে দেখবেন লগ ইন করার একটি অপশন রয়েছে নিচের ছবির মত।

ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড

ভোটার আইডি কার্ডের জন্য রেজিস্ট্রেশন করার সময় আপনি একটি ধাপে ইউজারনেম পাসওয়ার্ড সেটাপ করেছেন নিশ্চয়, এখানে ইউজারনেম এবং পাসওয়ার্ড দিয়ে লগইন করুন।

২য় ধাপ: লগ ইন করার পর আপনি আপনার ছবি এবং বাকি সব ভোটার তথ্য দেখতে পাবেন একটি পেজের নিচের ছবির মত।

ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড

যখন ভোটার আইডি কার্ড অনলাইন কপি ডাউনলোড করার এই পেজটিতে আসবেন তখন এখানে সকল তথ্য পাবেন এবং উপরে দেখতে পাচ্ছেন ডাউনলোড করে একটি অপশন ক্লিক করার সাথে সাথে আপনার ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড হয়ে যাবে ভোটার আইডি কার্ড চেক বাকী সব কিছু চেক করতে বিস্তারিত প্রফাইল ক্লিক করে সব কিছু দেখতে পারবেন।

ভোটার আইডি কার্ড সংশোধন করার নিয়ম

ভোটার আইডি কার্ড সংশোধন করার জন্য আমাদের এই পোস্টটি সম্পূর্ণ পড়ুন আপনি খুব সহজেই ভোটার আইডি কার্ড সংশোধন করার জন্য আবেদন করতে পারবেন ভিজিট করুন 

আমাদের এই পোস্টটি আপনার উপকারী হলে অবশ্যই শেয়ার করতে ভুলবেন না এবং কোন কিছু জানার থাকলে অবশ্যই কমেন্ট করবেন আমরা বুঝিয়ে দেওয়ার পরিপূর্ণ চেস্টা করব।

GPF Balance check on mobile: জিপিএফ ব্যালেন্স চেক

Leave a Comment