অনলাইনে জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড করার উপায় ২০২২

You are currently viewing অনলাইনে জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড করার উপায় ২০২২
অনলাইনে জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড করার উপায়

অনলাইনে জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড করার উপায় ২০২২: আমাদেরকে অনেক সমস্যার সম্মুখীন হতে হচ্ছে অনলাইনে আপনারা নিজেদের জাতীয় পরিচয়পত্র কার্ড বের করতে পারতেছেন না। তাই এই পোস্টটি যদি আপনি ভালো ভাবে ফলো করেন তাহলে অনেক সহজেই আপনি আপনার ভোটার আইডি কার্ড চেক এবং ডাউনলোডও করতে পারবেন। তাহলে শুরু করা যাক আজকের ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করার পদ্ধতিটি।

অনলাইনে জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড করার উপায়

কম্পিউটার এবং মোবাইল যেকোনো ভাবেই এই ধাপ গুলো অনুসরণ করে জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড করতে পারবেন, আমরা বেশিরভাগ মোবাইলে জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড করতে চাই তাই আমরা মোবাইলে ডাউনলোড করার নিয়মটা দিয়েছে তবে আপনি যেকোন মাধ্যমে Voter ID Card download করে নিতে পারবেন আশা করি:

আমরা অনলাইনে নতুন ভোটার হওয়ার জন্য একটি আবেদন ফরম পূরণ করতে হয়, এবং পরবর্তীতে এই আবেদন ফরম উপজেলা নির্বাচন কমিশনে জমা দেওয়ার পর আমাদের ফটো এবং ফিঙ্গার নিয়ে থাকে। এই সময় ভোটার আইডি কার্ড চেক করার জন্য বা পরবর্তীতে নির্বাচন কমিশন থেকে কার্ড সংগ্রহ করার জন্য একটি স্লিপ দেওয়া হয় যেখানে ৯ ডিজেটের একটি নাম্বার থাকে আমরা এই নাম্বারের মাধ্যমে ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করব।

ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করার ধাপ

প্রথমে আপনার মোবাইলের বা কম্পিউটারের যেকোনো একটি ব্রাউজার ওপেন করুন এবং গুগলে সার্চ করুন. NID Card download, দেখবেন সর্বপ্রথম services.nidw.gov.bd এ ওয়েবসাইট আসবে সেই ওয়েবসাইটে ভিজিট করুন। তখন নিচে দেওয়া পিকচারের মত হোম পেজ আপনার সামনে আসবে।

ভোটার আইডি কার্ড চেক

আপনি নতুন ভোটার হয়েছেন তাই আপনাকে ভোটার আইডি কার্ড চেক করার জন্য রেজিস্ট্রেশন করতে হবে আপনি রেজিস্ট্রেশন অপশনে ক্লিক করুন। তারপর আপনি পরের ধাপ পড়ুন।

আইডি কার্ড চেক করার নিয়ম
আইডি কার্ড চেক

জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড করার জন্য রেজিস্ট্রেশন অপশনে ক্লিক করার পর উপরের পিকচারের মত পেইজ ওপেন হবে এখানে প্রথমে ২ টি অপশন রয়েছে একটি হল ফর্ম নাম্বার এবং আরেকটি হল ভোটার আইডি কার্ডের নাম্বার,  এই দুই মাধ্যমেই ভোটার আইডি কার্ড চেক করতে হবে, যেহেতু আপনি নতুন আইডি চেক করবেন তাই এখনও ভোটার আইডি কার্ড পাননি তাই আপনার কাছে এন আইডি কার্ডের নাম্বার নেই আপনি স্লিপ নাম্বার দিয়ে চেক করবেন।

বিঃদ্রঃ: আপনার কাছে যদি ভোটার আইডি কার্ডের নাম্বার থাকে তাহলে আপনি ভোটার আইডি কার্ডের নাম্বার দিয়েও চেক করতে পারবেন। এখানে স্লিপ নাম্বার দিয়ে দেখানো হয়েছে।

অনলাইনে জাতীয় পরিচয়পত্র সংশোধন কিভাবে করবেন জানতে ভিজিট করুন

দ্বিতীয় ধাপ

আপনি ফরম নাম্বারের (স্লিপ নাম্বার) নয় ডিজিটের নাম্বার প্রথম লাইনে বসাবেন, অথবা ভোটার আইডি কার্ডের নাম্বার বসাবেন যদি থাকে, তার পর আপনার জন্ম তারিখ সঠিক ভাবে বসাবেন, এবং একটি কেপচার দেওয়া রয়েছে এটি দিয়ে ভোটার আইডি চেক করতে সাবমিট অপশনে ক্লিক করুন। পরে পড়ুন..

জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড এর জন্য নাম্বার জন্ম তারিখ দেওয়ার পর এখন আপনার অ্যাকাউন্ট ইনফরমেশন দিবেন আপনার ভোটার এলাকার নাম জেলার নাম বিভাগের নাম সব কিছু ভোটার আইডি কার্ডে যেভাবে দেওয়া রয়েছে ঠিক সেভাবেই দিবেন ভুল হলে আপনার রেজিস্ট্রেশন হবে না তাই সঠিক ভাবে বসাবেন। যেসব তথ্য এই ধাপে দিবেন তাহলো..

বর্তমান ঠিকানায়:

  • বিভাগ
  • জেলা
  • উপজেলা

স্থায়ী ঠিকানায়:

  • বিভাগ
  • জেলা
  • উপজেলা

আপনার বর্তমান ঠিকানা এবং স্থায়ী ঠিকানা আলাদা আলাদা হলে সঠিক ভাবে যেভাবে ভোটার আইডি কার্ডের আবেদন করার সময় দিয়েছেন সেভাবে দিবেন, আর যদি আপনার উভয় ঠিকানা এক হয় তাহলে একই ঠিকানা দুইবার বসাবেন, তারপর পরবর্তী অপশনে ক্লিক করুন এবং পরের ধাপ পড়ুন।

তৃতীয় ধাপ

এই ধাপে আপনার মোবাইল নাম্বার ভিরিফাই করতে হবে আপনি ভোটার ফরম দেওয়ার সময় যে মোবাইল নাম্বার দিয়েছেন এই পেইজটিতে নাম্বারটি সো হবে আপনি চাইলে চেইন্জ অপশনে ক্লিক করে চেঞ্জ ও করতে পারবেন। কোডের জন্য ক্লিক করবেন আপনার ফোনে একটি কোড আসবে এই কোডটি এখানে বসাবেন এবং পরবর্তী ধাপের জন্য ক্লিক করবেন।

ভোটার আইডি কার্ড চেক

আপনার মোবাইল নাম্বার কোড দিয়ে ভেরিফাই করার পর এখন পরবর্তী ধাপে আপনি আপনার ফেইস ভেরিফাই করতে হবে পোস্টটি পড়তে থাকুন বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন ভোটার আইডি জন্য আপনার ফেইস ভেরিফাই খুব সহজে করতে পারবেন।

চতুর্থ ধাপ

জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড করতে ফেইস ভেরিফাই যেভাবে করবেন?

নাম্বার ভিরিফাই শেষ হওয়ার আপনার সামনে নতুন একটি পেজ আসবে এই পেইজটিতে আপনি NID Wallet ইন্সটল করতে হবে এবং আপনার ফেইস ভেরিফাই করতে হবে নিচের ছবির প্রতি লক্ষ্য করুন।

ভোটার আইডি কার্ড চেক করার জন্য ফেইস ভেরিফাই করার প্রয়োজন হয়। আইডি কার্ড চেক করতে ফেইস ভেরিফাই কিভাবে করবেন তার সহজ উপায় আমরা বলে দিচ্ছি যাতে আপনি সহজে করতে পারেন ফেইস ভেরিফাই এবং এন আইডি কার্ড চেক।

স্টেপ ১. NID Wallet নামের একটি অ্যাপ ইন্সটল করতে হবে এর জন্য প্রথমে আপনি আপনার মোবাইলের প্লে স্টোর ওপেন করে সার্চ করুন NID Wallet এন আইডি ওয়ালেট সার্চ করার পর প্রথমে যে অ্যাপ আসবে আপনি ইন্সটল করে নিন।

স্টেপ ২. অ্যাপ ইন্সটল করার পর আপনি ভোটার আইডি কার্ড রেজিস্ট্রেশন করার যে ধাপে ছিলেন সেখানে লাল বটমে ক্লিক করবেন যাতে লেখা রয়েছে Tap to open NID Wallet ক্লিক করার পর আপনি আপনার ইন্সটল করা অ্যাপ নিচে দেখবেন ক্লিক করার সাথে সাথে ভেরিফাই করার জন্য অপশন পেয়ে যাবেন।

স্টেপ ৩. আপনার ফেইস ভেরিফাই কমপ্লিট হওয়ার পর অটোমেটিকলি আপনি ভোটার আইডি কার্ড রেজিস্ট্রেশন করার যে ধাপে ছিলেন সে ধাপে নিয়ে যাবে এবং আপনি আপনার ফেইস ভেরিফাই সাকসেসফুল দেখতে পাবেন।

আপনি উপরে দেওয়া ফেইস ভেরিফাই করার নিয়ম অনুসরণ করে ভেরিফাই করার কাজ সম্পূর্ণ করতে পারবেন। আপনি যখন ফেইস ভেরিফাই করা শেষ করে নিবেন তারপর ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করার জন্য পরবর্তী ধাপে অটোমেটিকলি নিয়ে যাবে। ফেইস ভেরিফাই করতে আপনি লাল বটমে ক্লিক করলে আপনাকে অ্যাপস ডাউনলোড করার জন্য একটি পেইজ আসবে আপনি ডাউনলোড করার আবার লাল বটমে ক্লিক করলে নিচে দেখবেন NID Wallet apps টি আসবে অ্যাপসে ডুকার পর বাকি সব বুঝতে পারবেন। ভেরিফাই কমপ্লিট হলে পরের ধাপ পড়ুন।

এন আইডি কার্ড ডাউনলোড করার ৫ম ধাপ

ভোটার আইডি কার্ড চেক করার জন্য যখন আপনি ফেইস ভেরিফাই করা শেষ করবেন তখন অটো আরেকটি পেইজ আসবে এবং প্রফাইল পিকচার এবং বাকি ভোটার তথ্য সো হবে এবং এখানে একটি পাসওয়ার্ড সেটাপ করতে বলবে চাইলে আপনি পাসওয়ার্ড দিতেও পারেন আবার চাইলে না দিয়ে আপনি সামনের ধাপে যেতে পারবেন, পাসওয়ার্ড সেটাপ করলে লাভ এটিই যে আপনি পরবর্তিতে যদি আপনি আবার আপনার ভোটার আইডি কার্ড চেক করতে চান বা ডাউনলোড করতে চান তাহলে অনেক সহজেই করতে পারবেন এটি।

জন্ম নিবন্ধন অনলাইন চেক করুন।

ভোটার আইডি কার্ড চেক

কিভাবে ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করবেন?

পরবর্তী স্টেপে আপনি যদি পাসওয়ার্ড সেটাপ করেন তাহলে জাতীয় পরিচয়পত্র নাম্বার/ ভোটার আইডি কার্ডের নাম্বার এবং আপনার দেওয়া পাসওয়ার্ড দিয়ে পরের ধাপে যাবেন। আর যদি চান তাহলে এড়িয়ে যেতে ও পারেন, এই পেইজটিতে আপনার ভোটার আইডি কার্ডের সকল তথ্য দেওয়া পাবেন এবং সাইটে আপনার আইডি কার্ডের ডাউনলোড অপশন ও দেখতে পাবেন, ডাউনলোডে ক্লিক করলে আপনার আইডি কার্ড ডাউনলোড হয়ে যাবে।

ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড

বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড উপরে বিস্তারিত জানতে পারলেন এখন‌ আপনি এই কার্ডের মাধ্যমে আপনার সকল কাজ করতে পারবেন। চাইলে আপনি প্রিন্ট করে আপনার যে সব কাজে প্রয়োজন আপনি ব্যবহার করতে পারবেন।

ভোটার আইডি কাড কিভাবে বের করব?

অনেকেই কমেন্ট করেছেন যে ভাই বলেন যে কিভাবে আমি ভোটার আইডি কার্ড বের করব আমার বটম মোবাইল থেকে? তাই এর জন্য সহজ পদ্ধতি হচ্ছে এটি, আপনি উপরের ধাপগুলো অনুসরণ করে আপনার এন আইডি কার্ড এর মেইন কপি বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন ভোটার আইডি কার্ড কপি চেক করতে পারবেন,

জাতীয় পরিচয় পত্র নম্বর

এসএমএস দিয়ে আইডি কার্ড চেক করার জন্য Nid card check By SMS, আপনার মোবাইলের ম্যাসেজ অপশনে গিয়ে টাইপ করবেন NID লিখে পরে একটি স্পেস দেবেন তারপর ফরম/স্লিপ নম্বরটি লিখে আবার একটি স্পেস দেবেন তারপর জন্ম তারিখ লিখবেন এই নিয়মে DD/MM/YYYY। তারপর ১০৫ নম্বরে ম্যাসেজ সেন্ট করে দেবেন। উক্ত ফরমেটে মোবাইল থেকে ১০৫ নম্বর ম্যাসেজ পাঠানোর পর ফিরতে ম্যাসেজে আপনার Nid Number জানিয়ে দেয়া হবে। উদাহরন: NID 89867788 06/11/2001 এইভাবে লিখে 105 নাম্বারে মেসেজ দিয়ে দিবেন।

কোন কিছু না বুঝে থাকলে কমেন্ট করবেন আপনাকে বুঝিয়ে দেওয়া হবে এবং সবাই ভালো থাকবেন এবং পোস্টটি শেয়ার করবেন।

জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড লিংক

জাতীয় পরিচয়পত্র ডাউনলোড লিংক: https://services.nidw.gov.bd Step by step follow our process and download your nid card.

জাতীয় পরিচয় পত্র অনুসন্ধান

এই পোস্টটি যদি আপনি ভালো ভাবে ফলো করেন তাহলে অনেক সহজেই আপনি আপনার জাতীয় পরিচয় পত্র অনুসন্ধান করতে পারবেন.

Mahfujur Rahman

Mahfujur Rahman is the founder of this Blog. He is a Professional Blogger and SEO Expert, who is interested in SEO, Web Programming. If you need any information related to this website, then you can feel free to ask here. It is our aim that you get the best information on this blog.

Leave a Reply