You are currently viewing জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করার নিয়ম | Birth Certificate Correction Online

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করার নিয়ম | Birth Certificate Correction Online

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন: জন্ম নিবন্ধন আমাদের সবারই একটি গুরুত্বপূর্ণ জিনিস।(Birth Certificate Correction Online) জাতীয় পরিচয় পত্র পাই আমরা ১৮ বছর বয়স হলে পাই কিন্তু তার আগে জন্ম নিবন্ধন কার্ড টা আমাদের জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে খুব দরকারি। বাংলাদেশে প্রতিদিন জন্ম নিবন্ধন ভুল হচ্ছে তার কারণ হলো যখন জন্ম নিবন্ধন বই থেকে অনলাইন আপডেট করা হয় তখন টাইপিং মিসটেক এর কারনে অনেক কিছু ভুল হয়ে যায়।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন এর জন্য যে ভুলগুলো হয়ে থাকে সাধারণত। (Birth Certificate Correction Online)

১) নিজের নাম
২) বাবার নাম
৩) মায়ের নাম
৪) স্বামীর নাম
৫) জন্ম তারিখ
৬) ঠিকানাা

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করার নিয়ম।

আর এই ভুল নিয়ে অনেক সমস্যায় পড়তে হয় সবক্ষেত্রে।
আমরা সবাই জানি,জন্মনিবন্ধনের সার্ভারটি ভোটার আইডি কার্ড এর সার্ভার এর মত ডিজিটাল করা হয়েছে। ভোটার আইডি কার্ডের মত জন্ম নিবন্ধন কার্ড আমাদের অনেক কাজে ব্যবহৃত হয় তাহলে চলুন step-by-step আমরা জেনে নেই কিভাবে জন্ম নিবন্ধন ভুল সংশোধন করতে হবে।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধনের জন্য প্রথমে যে কাজটি করতে হবে।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করার জন্য আগে জন্ম নিবন্ধন কার্ড ডিজিটাল করতে হবে সেজন্য আগে আপনাকে ইউনিয়ন পরিষদে গিয়ে ডিজিটাল করার কাজটি সম্পন্ন করতে হবে।
আবেদনটি অনলাইনের মাধ্যমে মোবাইল ফোন অথবা কম্পিউটার দিয়ে দিয়ে করা যায় তবে কম্পিউটার দিয়ে করাই শ্রেয় কারণ আবেদন করার পর ডকুমেন্ট প্রিন্ট করতে হয়।

ভোটার আইডি কার্ড সংশোধন করার নিয়ম

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করার ধাপসমূহ।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করার প্রথম ধাপ।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন

প্রথমে আপনি আপনার মোবাইল অথবা কম্পিউটার একটি ব্রাউজার ওপেন করে নিন। তারপর গুগলে সার্চ করুন- bdris.gov.bd অথবা এই ওয়েবসাইটে ভিজিট করতে হবে। ওয়েবসাইট লিঙ্ক। bdris.gov.bd/br.correction.

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করার দ্বিতীয় ধাপ।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন

জন্ম নিবন্ধন তথ্য সংশোধন আবেদন নামে একটি অপশন পাওয়া যাবে তারপর দেখতে পারবেন যে জন্ম নিবন্ধন কার্ড সংশোধন করতে চাচ্ছেন সেটা জন্ম নিবন্ধন নাম্বার এবং জন্মতারিখ দিয়ে অনুসন্ধানী অপশনে ক্লিক করবেন।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন সংশোধন করার তৃতীয় ধাপ।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন

আপনার নাম ডিটেলস আসবে। তারপর নির্বাচন অপশনে ক্লিক করবেন, নিবন্ধন কার্যালয় ঠিকানা দিবেন ( আপনাকে মনে রাখতে হবে সর্বোচ্চ চার বার জন্ম নিবন্ধন সংশোধন আবেদন করা যাবে তাই যখন সংশোধন করবেন অনেক মনোযোগ সহকারে সঠিকটা সংশোধন করার চেষ্টা করতে হবে)

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করার চতুর্থ ধাপ।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন

অপশন দেখতে পাবেন যে কোন কোন বিষয়গুলো আপনি সংশোধন করতে চাচ্ছেন। আপনার যে যে তথ্যগুলো জন্ম নিবন্ধনে পরিবর্তন করার দরকার সেগুলো সিলেক্ট করে সঠিক তথ্য দিবেন। তার পাশে সংশোধনের কারণসহ উল্লেখ করে দিবেন।Birth Certificate Correction Online.

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করার পঞ্চম ধাপ।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন

আপনার আরও কিছু তথ্য দিতে দিতে পারেন যেমন আপনার ঠিকানা। আপনার বাবার নাম মায়ের নাম ইত্যাদি।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করার ষষ্ঠ ধাপ।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন

একেবারে নিচের অপশন এ গিয়ে দেখবেন আবেদনকারী তথ্য ওখানে যিনি নিজে আবেদন আবেদন করবেন তার সঠিক তথ্য দিবেন। বিশেষ করে ফোন নাম্বারটা করণ আবার যদি কোনো সংশোধনের দরকার হয় তাহলে সে ফোন নাম্বারে তার সাথে যোগাযোগ করা হবে।

ভোটার আইডি কার্ড চেক কিভাবে করবেন অনলাইনে।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করা সপ্তম ধাপ।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন

তারপর প্রয়োজনীয় ডকুমেন্ট যেমন।
১) যিনি আবেদন করবেন তার জন্ম নিবন্ধন।
২) আবেদনকারীর পিতা ও মাতার জন্ম নিবন্ধন।
৩) তথ্য প্রমাণের জন্য কিছু গুরুত্বপূর্ণ ডকুমেন্ট যেমন শিক্ষাগত যোগ্যতার সনদ টিকা সনদ আর যদি ভোটাধিকার থাকে।
ইত্যাদি এগুলো ফাইল সাবমিট করতে হবে
৮) জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করা অষ্টম ধাপ :পেমেন্ট অপশনে গিয়ে দুটো অপশন দেখতে পারবেন
১. ফি আদায় : এটি অনলাইন পেমেন্ট পদ্ধতি ব্যবহারের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য
২. চালানের মাধ্যম: ব্যাংকের মাধ্যমে পরিশোধ করলে এই অপশন প্রযোজ্য। আর এক্ষেত্রে কোন ব্যাংক থেকে টাকা দেওয়া হয়েছে, ব্যাংকের ব্রাঞ্চ, চালান নং, চালান জমা দেওয়ার তারিখ এগুলো সঠিকভাবে কি করতে হবে।
আপনার যেভাবে সুবিধা হয় সে অপশনে পেমেন্ট করে সাবমিট বাটনে ক্লিক করে দিবেন

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন করার নবম ধাপ।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন

জন্ম নিবন্ধন সংশোধন

অ্যাপ্লিকেশন সম্পন্ন হলে একটি আবেদনপত্র নাম্বারটা হবে যে নাম্বারটি আপনার মোবাইলে মেসেজ করে দেওয়া হবে। তারপর আবেদনের ডকুমেন্ট প্রিন্ট আউট করে উল্লেখিত ডেট এর বছরের মধ্যে নিবন্ধন অফিসে সাবমিট করতে হবে। নিবন্ধন কার্যালয় যোগাযোগ করার পর তার পরবর্তী যা করতে হবে সেখান থেকে আপনাকে বলে দেওয়া হবে।

পাসপোর্ট চেক করার নিয়ম।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধনের কোন কিছু বুঝে না থাকলে অবশ্যই কমেন্ট করবেন আমরা বুঝিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করব। আর আমাদের পোস্টট আপনাদের উপকারি হলে অবশ্যই শেয়ার করবেন এবং আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিয়ে সাপোর্ট করবেন।

ফেসবুক পেইজে লাইক দিন।

জন্ম নিবন্ধন সংশোধনের জন্য ভিডিও দেখুন।

Leave a Reply