পেনশন তোলার নিয়ম | Pension and Fund Management

You are currently viewing পেনশন তোলার নিয়ম | Pension and Fund Management

পেনশন তোলার নিয়ম: সরকারি কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের জন্য পেনশন একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় , পেনশন যেমন, ভবিষ্যৎ এর একটি উপায় তেমনি তা তোলার প্রদ্ধতি ও নিয়ম জানতে হবে। সরকারি কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের জন্য পেনশন তোলার কাজ আরও সহজ করল সরকার। পেনশন সহজীকরণ আইনের আদেশ সংশোধন করেছে সরকার।অর্থমন্ত্রনালয়ের অর্থ বিভাগ এর প্রবিধি অনুবিভাগে এ বিষয়ে একটি প্রজ্ঞাপন জারি করেছে। সংশোধন এর পাশাপাশি পরিবর্তন ও সংযোজন করা হয়েছে।তবে পেনশন তোলার নিয়ম জানার আগে পেনশন কি তা একটু শেয়ার করলাম।

পেনশন তোলার নিয়ম 2023

পেনশন: প্রকৃতপক্ষে মাসিক পেনশন ও আনুতোষিক দুটোর সমন্বয়কে পেনশন বলে। আবার পেনশন বলতে সরকারি চাকরি শেষে একজন চাকরিজীবি পেনশন বা মাসিক ভিত্তিতে একটি ভাতা পেয়ে থাকেন তাহাই পেনশন নামে আখ্যায়িত।

অর্থ বিভাগ এর যুগ্ম সচিব মোঃ শাহজাহান সাক্ষরিত নতুন প্রজ্ঞাপনে বলেন সরকারি কর্মচারীদের পেনশন কার্যক্রমের প্রতিবন্ধকতা ও জটিলতা নিরসনে উদ্দেশ্য এটি জারি করা হয়েছে।

এই সংশোধনীতে চাকুরে শব্দের পরিবর্তে কর্মচারী করা হয়েছে

সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পেনশন সহজীকরণ করার আদেশ ২০২০ আদেশের কিছু পরিবর্তন আনা হয়েছে। সরকারি কর্মচারী কিংবা তাদের পরিবারের সদস্যরা নতুন সংযোজিত আটটি ধাপ পূরণ করলে তিনি তার পেনশন ব্যাংক একাউন্ট এ পেয়ে যাবেন তিন কার্যদিবসের মধ্যে।

সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের তাদের পরিবার নতুন কয়েকটি ধাপ পূরণ করতে হবে।

ধাপগুলো হলো:

  • প্রত্যাশিত শেষ বেতনপত্র ইএলপিসি ।
  • প্রাপ্তব্য পেনশন এর বৈধ উত্তরাধিকারী ঘোষণা পত্র।
  • উত্তরাধিকারী সনদপত্র ও নন ম্যারিজ সার্টিফিকেট।
  • পেনশন ফরম ২.১।
  • পারিবারিক পেনশন ফরম ২.২।
  • নমুনা সাক্ষর ও হাতের পাঁচ আঙুল এর ছাপ।
  • আনুতোষিক ও অবসর ভাতা উত্তোলন করার জন্য ক্ষমতা অর্পণ ও অভিভাবক মনোনয়ন এর প্রত্যয়নপত্র ,না দাবি প্রত্যয়নপত্র।
  • এই আটটি নতুন ধাপ সংযোজন করলে পেনশন তোলা সহজ হবে।

অনলাইন পেনশন আবেদন ফরম পূরণ করার নিয়ম

পেনশন এর জন্য আরো কয়েকটি বিষয় হচ্ছে:

পেনশন সহজ আদেশ ২.০৫ অনুচ্ছেদ এ সংশোধন করে বলা হয় যে ,নন গেজেটেড কর্মচারী ইএলপিসি হিসাব রক্ষক কর্মকর্তাকে সাত কর্মদিবস এর মধ্যে প্রতিসাক্ষর করতে হবে। আদেশে এতদিন এই সময়সীমা ছিল না

আদেশের ২.০৬ অনুচ্ছেদে বলা একটি বাক্য সংযোজন করা হয়েছে তা পূর্বে ছিল না তা হল পেনশন মজুরি কর্তৃপক্ষ কোন কর্মচারীর কাছ থেকে পেনশন আবেদন পাওয়ার না দাবি প্রত্যয়নপত্র সংগ্ৰহ করতে ব্যর্থ হলে আবেদন কারীর কাছে কোন দাবি নেই ধরে তার পেনশন কেস নিস্পত্তি করতে হবে।

২.০৭ অনুচ্ছেদে সংশোধন করে প্রাপ্য ছুটির নগদারনের অর্থ ১২ মাসের মূল বেতন থেকে বাড়িয়ে ১৮ মাসে করা হয়েছে

হিসাবরক্ষন অফিস এর পক্ষ থেকে কর্মচারীদের অগ্ৰীম তারিখের চেক নিয়ন্ত্রকারী কর্তৃপক্ষ প্রধানের কাছে পাঠানোর নিয়ম আছে তবে এর অগ্ৰায়নপত্রের অনুলিপি কর্মচারীকে দিতে হবে।

পেনশন হিসাব করার নিয়ম

পেনশন এর নতুন নিয়মে এবার ভবিষ্যৎ তহবিলের সুদের সঙ্গে বার্ষিক বেতন বৃদ্ধি যুক্ত হয়েছে।আর যারা ভবিষ্যত তহবিলের জমা করা টাকার ওপর সুদ বা ইনক্রিমেন্ট নিতে না চান সরকারের পক্ষ থেকে তাদের চাঁদা বা অনুদান দেওয়ার বিষয়টি পরবর্তীতে বিবেচনা করা হবে।

পেনশন তোলা বা পাওয়ার জন্য আপনাকে কি কাগজপত্র গুছিয়ে রাখতে হবে তা একটু শেয়ার করলাম।

  • appointment letter.
  • Confirmation letter.
  • D.O.B copy.
  • Educational certificate.
  • Result of education.
  • Professional Qualification Result.
  • All transfer order.
  • All joining and release order.
  • HT appointment letter.
  • Specimen signature.
  • joint/ single photo.
  • Family member certificate.
  • Nominees copy.
  • Part-a/ part – b copy.
  • D.O.B spouse and nominee.
  • Ropa papers.
  • 18 years fixation.
  • HT pay Fixation.

এই ছিল পেনশন তোলার যাবতীয় বিষয় আরো বিষয় থাকলে আপনারা তো অবশ্যই জানবেন তবে পেনশন তোলার জন্য যে যে জরুরি বিষয় কাগজ পত্র ইত্যাদি তা থাকার তা অবশ্যই ready রাখতে হবে ।প্লিজ ভুল ত্রুটি হলে কমেন্টে করে জানাবেন।

Leave a Reply