নতুন পে স্কেল চূড়ান্ত অনুমোদনে মন্ত্রীপরিষদের সভা

You are currently viewing নতুন পে স্কেল চূড়ান্ত অনুমোদনে মন্ত্রীপরিষদের সভা
নতুন পে স্কেল চূড়ান্ত অনুমোদনে মন্ত্রীপরিষদের সভা

আসসালামুয়ালাইকুম নিশ্চয় সবাই ভালো আছেন আজ আমি আপনাদের সাথে শেয়ার করলাম নতুন পে স্কেল চূড়ান্ত অনুমোদন নিয়ে সোমবার মন্ত্রিপরিষদ সভায় নতুন পে -স্কেল চূড়ান্ত অনুমোদন পেল। অনুমোদন পাওয়া সরকারি কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের জন্য এটা একটা বড় সুখবর।

চূড়ান্ত হলো নতুন বেতন কাঠামো

  • সরকারি চাকুরীজীবিদের নতুন বেতন কাঠামো চূড়ান্ত হলো । অর্থাৎ মন্ত্রীসভায় অনুমোদন পেলেই নতুন বেতন কাঠামো টি রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে গেজেট আকারে জারি করা হবে বলে জানা গেছে।
  • সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে ,পে -স্কেল এর বিষয়টি অনিবার্য কারণবশত গোপন রাখা হয়েছে। অর্থাৎ পে -স্কেল সংক্রান্ত বিষয়টি অর্থমন্ত্রী নিজেই সরাসরি বৈঠকে উপস্থাপন করবেন।

নতুন পে স্কেল ২০২২ নতুন নিয়মে হবে সরকারের নির্দেশ | নতুন পে স্কেল কবে হবে?

তবে নতুন বেতন কাঠামো বা পে -স্কেল ঘোষণা করার পূর্বে প্রধানমন্ত্রীর সম্মতি নেয়ার প্রয়োজন পড়বে।

এদিকে গত সপ্তাহে অর্থমন্ত্রী জাতীয় সংসদ এ বলেছিলেন শিগগিরই সরকারি কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের পে -স্কেল মন্ত্রীপরিষদ বৈঠকে অনুমোদন এর জন্য তোলা হবে।

৯ম পে স্কেল দেওয়া হচ্ছে সংসদ নির্বাচনের আগেই

এর পূর্বে তিনি গনমাধ্যমেকে জানিয়েছেন টাইম স্কেল ও সিলেকশন গ্ৰেড তিনি একসঙ্গে রাখার পক্ষে নন।এর মধ্যে যেকোন একটিকে বাদ দেওয়া হবে । বিষয়টি আরো পরীক্ষা নিরীক্ষা করে দেখা হচ্ছে।

গ্ৰেডের কোন পরিবর্তন হচ্ছে না।

এছাড়াও পে -স্কেল পর্যালোচনা কমিটি প্রতি বছর ৫ শতাংশ হারে যে বেতন বাড়ানোর প্রস্তাব দিয়েছেন তা হয়তো আর থাকছে না ।বিকল্প আরেকটি সুবিধা দেয়া হচ্ছে এর বিপরীতে ।নতুন বেতন কাঠামোতে যে ২০ টি গ্ৰেড দেয়া হয়েছে তা বহাল রয়েছে।গ্ৰেডের কোন পরিবর্তন হচ্ছে না।

প্রায় ৪৫ হাজার কোটি টাকার সংস্থান রেখেছেন অর্থমন্ত্রী সরকারি চাকুরিজীবীদের বেতন ভাতা খাতে। চাকরিজীবীরা বর্তমানে যে বেতন ভাতা পাচ্ছেন এর সঙ্গে নতুন বেতন কাঠামোর বর্ধিত মূল বেতন আগামী ১ লাখ জুলাই থেকে পাওয়া যাবে।

নবম জাতীয় পে -স্কেল ও বেতন ভাতা নিরসন ও ৫০ শতাংশ মহার্ঘ ভাতা টাইম স্কেল ও সিলেকশন গ্ৰেড , পূর্নবহাল ও শতভাগ পেনশন ব্যবস্থা চালু সহ সাত দফা দাবি জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কে স্বারকলিপি দিয়েছেন সরকারি কর্মচারীরা।

রোববার ২ অক্টোবর এই স্বারকলিপি দেয়া হয় জেলা প্রশাসক এর মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী বরাবর ।

আশা রাখি বর্তমান পরিস্থিতি ও দ্রব্ মূল্য এর উর্ধগতি এবং সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনায় এনে আমাদের প্রধানমন্ত্রী সব সুযোগ সুবিধা বৃদ্ধি করবেন এবং চাকরিজীবীদের জীবনমান উন্নয়নে সহায়তা করবেন।

৯ম পে স্কেল ৫০ শতাংশ বেশি বেতন ভাতাদি বৃদ্ধি

Leave a Reply